কাদের হার্ট বেশি ভালো

0
40
মাংসভোজীদের ৪.৫ শতাংশটার্ম মুছে ফেলুন: সময়ব্যাপি সময়ব্যাপিটার্ম মুছে ফেলুন: খাবারের তালিকার খাবারের তালিকারটার্ম মুছে ফেলুন: ডায়েট প্ল্যানের বিরোধী ডায়েট প্ল্যানের বিরোধীটার্ম মুছে ফেলুন: সবজিভোজী সবজিভোজীটার্ম মুছে ফেলুন: ধূমপান ধূমপানটার্ম মুছে ফেলুন: নিউ জার্সি স্কুল নিউ জার্সি স্কুলটার্ম মুছে ফেলুন: উপস্থাপন উপস্থাপনটার্ম মুছে ফেলুন: হার্টের সমস্যার হার্টের সমস্যারটার্ম মুছে ফেলুন: গবেষণা গবেষণাটার্ম মুছে ফেলুন: দরকার দরকারটার্ম মুছে ফেলুন: তরুণ এবং নারী তরুণ এবং নারীটার্ম মুছে ফেলুন: রক্তচাপ এবং ধূমপানে রক্তচাপ এবং ধূমপানে
কাদের হার্ট বেশি ভালো

কাদের হার্ট বেশি ভালো- সবজিভোজী নাকি মাংসভোজীদের। এই একটি প্রশ্নের উত্তর খুঁজতেই গবেষণা চলছিলো বিগত তিন বছর ধরে। অবশেষে সেই প্রশ্নের উত্তর পেলেন গবেষকরা। প্রায় ১২,০০০ মানুষের উপরা চালানো এক গবেষণা বলছে খাবারের তালিকা থেকে মাংস বাদ দেওয়ার অভ্যাস হার্টের সমস্যা থেকে রেহাই দেয় না খুব একটা।

আমেরিকার রুটজার নিউ জার্সি স্কুল অব মেডিসিনের এই গবেষণা থেকে জানা যায় সবজিভোজীরা সাধারণত তরুণ এবং নারী। তবে তাদের হার্টের ঝুঁকি মোটেও মাংসভোজীদের থেকে কম নয়।

লাস ভেগাসে আমেরিকান কলেজ অব গ্যাসট্রোয়েটেরোলজির বার্ষিক সভায় এই গবেষণার ফলাফল উপস্থাপন করা হয়। গবেষণায় অংশ নেওয়া ১২০০০ মানুষের বয়স ২০ বছর বা তার উপরে। তাদের মধ্যে ২৬৩ জন সবজিভোজী। ২০০৭ থেকে ২০১০ সাল অব্দি পরিচালিত হয় এই গবেষণা। এই সময়ে গবেষকরা স্থূলতার হার, রক্তচাপ, রক্তে গ্লুকোজ ও কোলেস্টেরলের মাত্রা মেপে দেখেন যেগুলো কিনা হার্টের সমস্যার প্রধান কারণ। তারা অংশগ্রহণকারীদের ফ্রামিংহাম ঝুঁকির মাত্রাও পরিমাপ করেন। এই পরিমাপের ফলে জানা যায় ১০ বছরের মধ্যে হার্টের সমস্যার কোনো সম্ভাবনা আছে কিনা। সেটা ব্যক্তির বয়স, লিঙ্গ, কোলেস্টেরলের মাত্রা, রক্তচাপ এবং ধূমপানের অভ্যাসের উপর ভিত্তি করে করা হয়।

সেখানে দেখা যায় সবজিভোজীদের হার্টের সমস্যার সম্ভাবনা ২.৭ শতাংশ যেখানে মাংসভোজীদের ৪.৫ শতাংশ। তবে এই পার্থক্যকে উল্লেথ করার মতো বিশেষ কিছু বলে মনে করছেন না গবেষকরা।

সাম্প্রতিক এই গবেষণা সারাবিশ্বের পুষ্টিবিদদের দেওয়া ফল, সবজি ও শস্যদানায় ভরপুর ডায়েট প্ল্যানের বিরোধী। অবশ্য গবেষকরা নিজেরাই তাদের গবেষণার দুটি সীমাবদ্ধতার কথা বলেছেন। যার মধ্যে একটি হলো গবেষণাটি খুব স্বল্প সময়ে সম্পন্ন করা হয়েছে এবং অংশগ্রহণকারীরা নিজেরা তাদের খাবারের তালিকার কথা বলেছেন। তাই আরো নির্দিষ্ট করে বলতে আরো লম্বা সময়ব্যাপি গবেষণাটি চালানো দরকার ছিলো বলেই দাবি তাদের।

দৈনিক সংগ্রাম,২১ জুলাই ২০১৮

LEAVE A REPLY